পাঠকের কলমে

গুলিস্তান। নাম শুনলেই ঢাকার ব্যস্ততম একটি জায়গার ছবি ভেসে ওঠে। একসময় এটিই ছিলই ঢাকার প্রাণকেন্দ্র। তবে আশ্চর্যের ব্যাপার হলো, ঢাকা সিটি করপোরেশনের হোল্ডিংয়ের তালিকায় গুলিস্তান নামের কোনো স্থান নেই। আছে বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউ। পাকিস্তান আমলে ছিল জিন্নাহ অ্যাভিনিউ। কীভাবে জায়গাটির নাম গুলিস্তান হলো? শরীফ উদ্দিন আহমেদ সম্পাদিত ঢাকাকোষ বলছে, গুলিস্তান সিনেমা হলের নাম অনুসারে এই জায়গার নাম হয়ে যায় গুলিস্তান। রাজধানী…
হঠাৎ করে সাদাপোশাকধারী কিছু লোক এসে যদি আপনাকে বলে যে তারা আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য। আপনাকে তাদের সঙ্গে যেতে হবে, আপনার বিরুদ্ধে অভিযোগ আছে। আপনি কিছু না বুঝে ওঠার আগেই তারা আপনাকে গ্রেপ্তার করে বসল। অথচ আপনি কোনো অপরাধই করেননি। কিংবা ঘটনাটি আপনার সঙ্গে না ঘটে কোনো আত্মীয়ের সঙ্গে ঘটল। এ অবস্থায় কী করার আছে আপনার? আপনার কি কোনো তাৎক্ষণিক…
পাকিস্তান সৃষ্টির আগেই বিতর্কের সূত্রপাত হয়। ‘বাংলা’ নাকি ‘উর্দু’—কী হবে পাকিস্তানের রাষ্ট্রভাষা! পাকিস্তান সৃষ্টির পর বিষয়টি পূর্ব বাংলার সবচেয়ে আলোচিত ও বিতর্কিত প্রশ্নে রূপ নেয়। তখনকার সংবাদপত্রে এই বিতর্কের প্রতিফলন লক্ষ করা যায়। সংবাদপত্রগুলো পক্ষে-বিপক্ষে নানা প্রবন্ধ, নিবন্ধ ও সংবাদ প্রকাশ করে ভাষার ইস্যুটিকে গুরুত্বপূর্ণ করে তোলে।  দেশভাগের আগে পশ্চিম পাকিস্তানের নেতারা মনোভাব প্রকাশ করতে থাকেন যে একমাত্র উর্দুই হবে…
সাগুফতা ইয়াসমিন এমিলি: আমার আব্বা মোঃ নূরুল ইসলাম খান ছিলেন আমার জীবনের শক্তি ও সাহসের উৎস। তিনি জন্মেছিলেন ইংরেজী ১৯৩৮ সালের ১৬ মার্চ বিক্রমপুরের লৌহজং থানার সামুরবাড়ি গ্রামে। ব্রিটিশ রাজের শাসন-শোষণের দাপট তখন অনেকটা নিষ্প্রভ। স্বাধীনতার লক্ষ্যে গণজোয়ারে প্রকল্পিত ভারতবর্ষ। আব্বার শৈশব কাটে দ্বিতীয় মহাযুদ্ধের ডামাডোলে। দাদা চাঁন খান কলকাতায় ব্যবসা করতেন। তিনি ওই সময়েই আব্বাকে কলকাতা নিয়ে যান লেখাপড়ার…
We use cookies to improve our website. By continuing to use this website, you are giving consent to cookies being used. More details…