সবুজের তরে ‘লাভ বার্ড’

রবিবার, ২০ আগস্ট ২০১৭ ২১:১৬ ঘণ্টা

বেশ জমেছে তাদের প্রেমের রসায়ন। যেখানে সেখানে প্রেমের সাক্ষ্যও রেখে যান তারা। বিরাট-আনুষ্কা ‘লাভ বার্ড’ এখন উড়ে বেড়াচ্ছেন লঙ্কান দ্বীপে। এবার তাদের ভালোবাসার উদাহরণ রাখলেন সে দেশে। নিশ্চয়ই লঙ্কানরা খুব যত্ন করে বড় করবেন এই ভালোবাসার উদাহরণটিকে!

এই লাভ বার্ড অবসর সময়ে শ্রীলঙ্কায় গাছ রোপণে ব্যস্ত ছিলেন। তারা যে পরিবেশ বান্ধব জুটি তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। ক্যান্ডি স্টেডিয়ামের পাশেই বিরাট-আনুষ্কার লাভ বার্ডকে দেখা গেছে একসাথে গাছের চারা রোপণ করতে। এই ছবি সংবাদ মাধ্যমের সৌজন্যে ইতোমধ্যে ভক্তদের কাছে পৌঁছে গেছে।

শ্রীলঙ্কা সফরটিকে স্মরণীয় করতেই বিরাটের এমন সিদ্ধান্ত বলে জানা গেছে। কারণ আছে। এই শ্রীলঙ্কার মাটিতেই ২০০৯ সালে ওডিআই অভিষেক হয়েছিলো বিরাট কোহলির। তাই শ্রীলঙ্কাকে সব সসময়ই আলাদা গুরুত্ব দিয়ে থাকেন তিনি। লঙ্কান ভক্তদেরও কখনও নিরাশ করেন না কোহলি।

গেলো সপ্তাহের বুধবার ছিলো বিরাটের বাবার জন্মদিন। বিরাটও আছেন অবসর সময়ে। হঠাৎ করেই বিরাটকে না জানিয়ে লঙ্কা পৌঁছে গেলেন আনুষ্কা শর্মা। বিরাটের বাবার জন্মদিনে সারপ্রাইজ দিলেন তার সঙ্গীনি।

জানা গেছে, বিরাটকে খুশি করতেই হঠাৎই সারপ্রাইজের পরিকল্পনা বিরাট সঙ্গীনি’র। এমন জুটিকে কাছে পেয়ে কি সেলফি তোলার লোভ সামলানো যায়? ভক্তরা তাই ঘিরে ধরলেন ছবি তোলার জন্য। বিরুষ্কা অবশ্য ফ্যানদের আবদার ফেরাননি৷ নিজস্বী তুলেছেন নিজের স্টাইলেই। আর মুহূর্তেই নেট দুনিয়ায় টিনেজদের হাত ধরে যা ভাইরাল।

বিরাটদের ক্যারিবীয় দ্বীপ সফরের পরের কথা। অল্প কয়দিনের ছুটি পেয়েই এই দুই লাভ বার্ড উড়াল দিয়েছিলেন স্বপ্নের দেশ আমেরিকায়। অবশ্য পরে বিরাটের পোস্ট থেকে জানা গেলো তারা বেড়াচ্ছেন ইচ্ছেমতো।

We use cookies to improve our website. By continuing to use this website, you are giving consent to cookies being used. More details…