নির্বাচনের পরিবেশ তৈরিতে মামলা প্রত্যাহার চান ফখরুল

সোমবার, ২৯ মে ২০১৭ ১৫:৪৩ ঘণ্টা

নির্বাচনের পরিবেশ তৈরিতে সবার জন্য সমান সুযোগ দেওয়া, বিএনপির নেতা-কর্মীদের মামলা না দেওয়া এবং সব মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

মির্জা ফখরুল সরকারকে উদ্দেশ করে বলেছেন, ‘আপনারা নির্বাচন করবেন, আর আমরা আদালতের বারান্দায় দাঁড়িয়ে দেখব, সে ধরনের নির্বাচন দেশে হবে না।’

আজ সোমবার দুপুরে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে এক আলোচনা সভায় মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন। দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে বিএনপি ওই আলোচনা সভার আয়োজন করে।

বিএনপি নেতা মির্জা ফখরুল বলেন, তাঁরা নির্বাচন চান। তবে সেটি হতে হবে অংশগ্রহণমূলক, অর্থবহ নির্বাচন। এ জন্য দরকার নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সহায়ক সরকার।

ফখরুল অভিযোগ করেন, সরকার উন্নয়নের ভুল পরিসংখ্যান দিয়ে মানুষকে বোকা বানাচ্ছে। তাদের প্রতিটি হিসাবে গড় মিল আছে। বিএনপি শিগগির এ বিষয়গুলো আনুষ্ঠানিকভাবে তুলে ধরবে। বিবিএসের প্রতিবেদনের উল্লেখ করে তিনি বলেন, সরকার প্রবৃদ্ধির কথা বলে। আজকের পত্রিকায় প্রমাণ আছে কী প্রবৃদ্ধি হচ্ছে। প্রবৃদ্ধি হচ্ছে আওয়ামী লীগের নেতা নেত্রীদের।

ফখরুল আরও দাবি করেন, জিয়াউর রহমানের মৃত্যুতে দেশের কোটি কোটি মানুষ হতাশায় নিমজ্জিত হয়েছিল। আওয়ামী লীগ সুপরিকল্পিতভাবে জিয়াউর রহমানকে খাটো করতে চায়। কারণ, মুক্তিযুদ্ধে জিয়ার ভূমিকা এত ব্যাপক যে সেখানে আওয়ামী লীগ ম্লান হয়ে যায়।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ অভিযোগ করেন, আওয়ামী লীগ মুখে ধর্মনিরপেক্ষতার কথা বললেও তারা আসলে সুবিধাবাদী দল। ১৯৯৮ সালে ভোটের আগে তারা সবচেয়ে দক্ষিণপন্থী দল খেলাফতে মজলিশের সঙ্গে পাঁচ দফা চুক্তি করেছিল। সেখানে ফতোয়ার বিধানও ছিল। ভোট পাওয়ার জন্য আওয়ামী লীগ সেটা করেছিল। এখনো তারা একই কাজ করছে।

আলোচনা সভায় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী প্রমুখ বক্তব্য দেন।

We use cookies to improve our website. By continuing to use this website, you are giving consent to cookies being used. More details…