৫ জানুয়ারির পুনরাবৃত্তি আর হবে না: মোশাররফ

বৃহস্পতিবার, ২৫ জানুয়ারী ২০১৮ ২১:০২ ঘণ্টা

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির নেতা কর্মীকে নির্বাচনের বাইরে রাখার ষড়যন্ত্র চলছে। ২০১৪ সালের নির্বাচনের পুনরাবৃত্তি বাংলাদেশে আর হবে না। খালেদা জিয়া ছাড়া একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন হবে না।

বৃহস্পতিবার(২৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় জাতীয় প্রেসক্লাবের অডিটোরিয়ামে সাবেক প্রতিমন্ত্রী মরহুম নূরুল হুদা'র প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে তিনি এসব কথা বলেন। সভার আয়োজন করে নূরুল হুদা স্মৃতি সংসদ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, 'অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় বেগম খালেদা জিয়ার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। কুয়েতের আমীর, জিয়াউর রহমানের নামে ট্রাস্টটিতে সরাসরি টাকা পাঠিয়েছিলেন। তিনি একটি প্রতিষ্ঠানে দান করেছিলেন। সরকারের কোনো রিলিফ ফান্ডে আসে নাই, তাই এর সাথে বেগম খালেদা জিয়ার কোনো সম্পৃক্ততা নাই।

বিএনপির এই নীতিনির্ধারক বলেন, বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগারে নেওয়ার যতই ষড়যন্ত্র করেন, আমরা সকল মামলা আইনিভাবে মোকাবিলা করেছি। এই মিথ্যা, বানোয়াট, পাতানো মামলাকে রাজনৈতিকভাবে মোকাবিলা করবো।

প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের সমালোচনা করে সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, 'আদালত আপনাকে রং হেডেক বলেছিল। অর্থাৎ মাথা খারাপ। একজন রং হেডেক মানুষ একটা দেশের সরকার প্রধান হতে পারে না। রং হেডেক যদি না হবেন, পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে সুধি সমাজকে আপনি গাঁধা বলেন! তাহলে দেশের জনগণকে গাধা বলা বাকি থাকলো? ক্ষমতার শক্তিতে যা খুশি তাই বলবেন, আর আপনি শান্তিতে ক্ষমতার মসনদে বসে থাকবেন, সেটা জনগণ মেনে নিবে না।'

আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য দেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আবদুস সালাম, আমান উল্লাহ আমান, গোলাম আকবর খন্দকার, সদস্য বোরহান উদ্দিন, যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, নুরুল হুদার সন্তান তানভীর হুদা প্রমুখ।

We use cookies to improve our website. By continuing to use this website, you are giving consent to cookies being used. More details…